কীভাবে ওয়ার্ডপ্রেস এ সোশ্যাল শেয়ারিং বাটন তৈরি করতে হয়?

How To Make Social Media Sharing Button In WordPress

“ Social Media Sharing Button ” কিভাবে আপনার ওয়ার্ডপ্রেস সাইটের জন্য সোশ্যাল মিডিয়া শেয়ারিং বাটন তৈরি করবেন কোন প্রকার কোডিং ঝামেলা ছাড়াই।  শুধুমাত্র একটি প্লাগইন ব্যবহার করার মাধ্যমে খুব সহজে আপনার ওয়ার্ডপ্রেস সাইটে  “Social Media Sharing Button ” তৈরি করতে পারবেন এবং ” Social Sharing Button “ গুলো কিছুটা নিচের দেওয়া ছবির মত দেখাবে । 

 

কোন প্রকার কোডিং ছাড়াই সহজে এইরকম সুন্দর একটি  “ Social Sharing Button ” তৈরি করে নিতে পারবেন। একটি ওয়েব সাইটের অবকাঠামো এবং সৌন্দর্য বৃদ্ধি করার ক্ষেত্রে Social Media Sharing Button অনেক গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে। তাছাড়া এর ফলে আপনার ভিজিটর গুলো আর্টিকেল কে সহজে বিভিন্ন Social Media তে শেয়ার করতে পারবেন । ফলে আপনার ওয়েব সাইটের ভিজিটর বৃদ্ধি পাবে। এবং আপনি চাইলে প্লাগিন থেকে খুব সহজে প্লাগিনের মাধ্যমে “ Social Sharing Button ” গুলো সুন্দর ভাবে কাস্টমাইজ করে নিতে পারেন ।

কেন  Social Media Sharing Button ব্যবহার করবেন

ওয়েবসাইটে “ Social Sharing Button ”‌ ব্যবহার করে‌ অনেক ভিজিটর আনা সম্ভব । “ Social Sharing Button ” প্লাগিন এর মাধ্যমে এক‌ ক্লিক এর মাধ্যমে যেকোন ‌আর্টিকেল কে “ Social Media Platform ” এ সহজে শেয়ার করা যায়। “ Social Sharing Button ”  ব্যবহার করলে আপনি প্রচুর পরিমাণে ভিজিটর পাবেন এবং যা আপনার ওয়ার্ডপ্রেস সাইটের জন্য খুব গুরুত্বপূর্ণ একটি ‌দিক । কোননা ব্লগার (Blogger‌‌) এর মতো ফলোয়ার সিস্টেম নেই ‌যার ফলে ‌ভিজিটর আনতে একটু বেশি কষ্ট করা লাগে । এবং আমরা ওয়ার্ডপ্রেস সাইটের জন্য Social Media Sharing Button এর জন্য  “Social Snap প্লাগিন ব্যবহার করবো ।

কিভাবে Social Media Sharing Button তৈরি করতে হয় ।

প্রথমে আপনার ওয়ার্ডপ্রেস সাইটের ড্যাশবোর্ডে লগইন করুন এবং পাশের নেভিগেশন মেনুতে ক্লিক করুন। তারপর বাম দিকের নিচে লক্ষ্য করুন । নিচের স্ক্রিনশট এ দেখানো স্থানে ক্লিক করুন ।

 Click Add New

তারপর নিচের স্ক্রিনশট এর মতো একটি পেজ আসবে এখান থেকে সার্চ বক্সে “Social Snap ” লিখে সার্চ করুন এবং তারপর প্লাগইনটি দেখতে পাবেন । এখান থেকে ইনস্টল করে নিন বা ইনস্টল বাটন এ ক্লিক করুন। আমার ইতিমধ্যে ইনস্টল করা রয়েছে তার জন্য আমার টায় এক্টিভ দেখাচ্ছে । আর হ্যা ইনস্টল দেওয়া হয়ে গেলে এক্টিভ বাটনে ক্লিক করুন। তারপর ও না বুঝলে নিচের স্ক্রিনশট গুলো অনুসরণ করেও কাজ গুলো করতে পারবেন।

Social Snap Social Media Sharing Button Plugin

You Can Download Social Snap Plugin On WordPress.Org

তারপর আবার বাম পাশ থেকে নেভিগেশন মেনুতে ক্লিক করুন। একটু নিচের দিকে স্ক্রোল ডাউন করলে সর্বশেষ অপশন বা তার আগের পজিশন এ পেয়ে যাবেন Social Snap Plugin এর মেনু বা এডমিন প্যানেল। এখন থেকেই মূল কাজ শুরু। যদি Social Snap Plugin এর মেনু বা এডমিন প্যানেল খুঁজে না পেয়ে থাকেন তাহলে নিচের স্ক্রিনশট অনুসরণ করতে পারেন। তারপর সেটিংস অপশন এ ক্লিক করে ফেলুন।

Click Sittings

 

তারপর আপনি অনেক গুলো অপশন পাবেন এরমধ্যে  প্রথমে Manage Networks এ ক্লিক করুন তারপর আপনি যে যে সোশ্যাল  মিডিয়ার শেয়ারিং বাটন তৈরি করতে চান সেটি রেখে দিন এবং বাকি গুলো সরাতে ডান পাশে ছোট ক্রস চিহ্নিত স্থানে ক্লিক করুন। তাহলে সেই নেটওয়ার্ক সরে বা রিমুভ হয়ে যাবে। এই কাজ শেষ হয়েছে । তারপর নিচের দিকে স্ক্রোল ডাউন করলে বাটন সাইজ , বাটন লেবেল এবং আরো অনেক অপশন দেখতে পাবেন। সবগুলো সেটিংস আপনার পছন্দের মত করে করে নিন।‌ না বুঝতে পারলে নিচের স্ক্রিনশট টি অনুসরণ করতে পারেন।

Click Manage Networks

তারপর নিচের দিকে স্ক্রোল ডাউন করুন। Button Levels অপশন এ Network Level Option এ সিলেক্ট করুন।

Display On অপশন এ শুধুমাত্র পোস্ট অপশন সিলেক্ট করুন Button Spacing অপশন On করে নিন তারপর Save Changes বাটন এ ক্লিক করে সেটিংগুলো সেভ করে নিন। বিষয়গুলো না বুঝতে পারলে নিচের স্ক্রিনশট অনুসরণ করতে পারেন।

Add Social Media Sharing Button In WordPress

তারপর অপশন গুলো থেকে ব্যাক করুন তারপর অনলাইন বাটনে এ ক্লিক করুন । আসল কাজ এখনো করতে হবে , এই সেটিংস এর মাধ্যমে আপনার ওয়ার্ডপ্রেস সাইটের কোথায় Social Media Sharing Button  অবস্থান করবে তা দেখাতে পারেন । এবং Alignment এবং শেয়ার করুন বা আপনার ইচ্ছা মত বাক্য জুড়ে দিতে পারবেন। নিচের স্ক্রিনশট অনুসরণ করে সেটিংস গুলো সেভ করে নিন। তারপর সেভ চেন্জ Save Changes  বাটন এ ক্লিক করুন। এবং আপনি সফল ভাবে আপনার ওয়ার্ডপ্রেস সাইটের জন্য Social Media Sharing Button তৈরি করে নিতে পেরেছেন।

Click settings option

নোট:- উপর এর স্ক্রিনসটের স্থানে উক্ত লেখাটির বদলে আপনার ইচ্ছা মত কোন কিছু লিখতে পারেন। এখান এ লিখবেন তা আপনার ওয়ার্ডপ্রেস সাইটের Social Media Sharing Button এর আগে প্রদর্শন হবে । যেমন নিচের স্ক্রিনশট এর দিকে লক্ষ্য করুন। সুতরাং আপনার ইচ্ছা মত বাক্য ব্যবহার করতে পারবেন। “ শেয়ার করুন ” এই লেখাটিও দিতে পারবেন কোন সমস্যা নেই।

অবশ্যই জেনে রাখা দরকার যে কেন প্লাগিন ব্যবহার করবেন এ বিষয়ে

আশাকরি সবাই এখন নিজের ওয়েবসাইটে Social Media Sharing Button ব্যবহার করতে শুরু করবেন । কারণ আগেই বলেছি যে Social Media Sharing Button এর গুরুত্ব কতটুকু । ভিজিটর বাড়ানোর দুর্দান্ত একটি মাধ্যম হলো এটি। আপনি যদি ম্যানুয়ালি সোশ্যাল মিডিয়ায় শেয়ার বাটন তৈরি করতে চান তাহলে আপনাকে কোডিং জানা লাগবে । তারপরেও কোডিং এর মাধ্যমে সোশ্যাল মিডিয়া শেয়ারিং বাটন তৈরি করলে ওয়েবসাইটের স্পিড কমে যায়। কারণ তখন কাস্টম এইচটিএমএল এবং সিএসএস ব্যবহার করা লাগে। একটা সময় আমরা এইচটিএমএল এবং সিএসএস একটু বেশি পরিমাণে ব্যবহার করে ফেলি ফলে আমাদের ওয়েবসাইটের স্পিড ধীর গতির হয়ে যায় । তাই আমার পরামর্শ থাকবে প্লাগিন ব্যবহার করে কাজটি সম্পন্ন করা।

 

কিছু টিপস শেয়ার বাড়ানোর জন্য।

ভিজিটরদের কাছ থেকে বেশি বেশি শেয়ার নেওয়ার জন্য দারুন একটি টিপস আছে। মনে করুন আপনি একে আর্টিকেল লিখেছেন কিন্তু সবার পছন্দ না। তাই কেউ শেয়ার করতেছে না। অর্থাৎ এমন একটা আর্টিকেল লিখতে হবে কেন সবার পছন্দ এবং সবাই শেয়ার করার জন্য উদ্বুদ্ধ হয়। আর্টিকেল যথাযথ এবং মানসম্মত লেখার চেষ্টা করবেন। আপনাকে বুঝতে হবে কিভাবে ভিজিটরের মন জয় করা যায়। আর এটিই একমাত্র উপায় হচ্ছে সঠিক আর্টিকেল লেখার দক্ষতা এবং কিওয়ার্ড রিসার্চ। এটি সম্পর্কে আমার লেখা আর্টিকেল আছে আপনি চাইলে পড়ে আসতে পারেন ।

আরো পড়ুন –» কিওয়ার্ড রিসার্চ কীভাবে করে | Keyword Research In Bangla

কিওয়ার্ড রিসার্চ করে সঠিক নিয়মে আর্টিকেল লিখলে অবশ্যই ভিজিটরের ভালো পাবেন এবং ভিজিটর যখন দেখবে  আপনার আর্টিকেলটি তথ্যবহুল এবং মানসম্মত তখন তার শেয়ার করতে মনে যাবে । সেভাবে যা আমার যেহেতু উপকার হয়েছে অনেকের উপকার হতে পারে তাই শেয়ার করে দেওয়া যাক। এবং গুগল থেকে ভিজিটর অনেক কষ্টকর তার অপেক্ষা সোশ্যাল মিডিয়া প্ল্যাটফর্ম থেকে ভিজিটর আনা অনেক সহজ । এবং সহজেই আপনার ব্র্যান্ড বা কোম্পানি পরিচিতি লাভ করতে পারে । অর্থাৎ সকল কিছুর মূলে রয়েছে মানসম্মত কন্টেন্ট।

আশা করি আজকের আর্টিকেলের বিষয়টি বুঝতে পেরেছেন। সবাই ভালো থাকবেন সুস্থ থাকবেন। দেখা হবে নতুন কোন আর্টিকেলে। এখন চলতেছে আমাদের রমজান মাসে সবাই রোজা রাখার চেষ্টা করবেন এবং নামায কায়েম করবেন ,  খোদা হাফেজ।

Leave a Comment