৫টি জনপ্রিয় ওয়েবসাইট যা আপনার প্রয়োজনে আসতে পারে ।

আসসালামু আলাইকুম। প্রিয় ভিজিটর , কেমন আছেন । আশা করি পরম দয়ালু আল্লাহর রহমতে ভালো আছেন। আলহামদুলিল্লাহ আমিও ভালো আছি। আজকের আর্টিকেল এ জনপ্রিয় পাঁচটি ওয়েবসাইট সম্পর্কে বিস্তারিত আলোচনা করব। আপনি যদি ফটো ইডিটর হন তাহলে আপনার জন্য সুখবর আছে । খুব সহজেই আপনার প্রয়োজনীয় ওয়েবসাইট পেতে চলেছেন । তার মাধ্যমে আপনি আপনার ফটো ইডিটিং এর জন্য দারুন একটি ওয়েবসাইট পেয়ে যাবেন ।যা সত্যিই অনেক কার্যকর এবং চমকপ্রদ তাই অবশ্যই আমাদের সাথে থাকুন।

 

জনপ্রিয় ওয়েবসাইটগুলো অনলাইনের যে কোন সেক্টরে অনেক প্রয়োজন হবে । বিশেষ করে আপনি ফ্রিল্যান্সিং সেক্টরে কাজ করে থাকেন । আপনি যদি একজন ওয়েব ডেভেলপার হন তাহলে তো আরো ভালো। আপনার ক্লায়েন্ট এ সাইটে কাজ করতে পারবেন সহজেই । আর অন্য সেক্টরে তো আছেই তো চলুন আজকের এপিসোড শুরু করা যাক ।

 

ইমেজ কম্প্রেশন টুল – ব্যবহার পদ্ধতি

প্রথমে আমরা যেই ওয়েবসাইটগুলো চালু করব সেটি হচ্ছে এটা একটা ইমেজ কম্প্রেশন টুল । ওয়েববেস্ট একটা সফটওয়্যার যার মাধ্যমে আপনি খুব সহজেই আপনার ওয়েবসাইটে যে ইমেজ গুলো আছে , সেগুলো অপটিমাইজ করে ফেলতে পারবেন । আপনি যদি অপটিমাইজেশনে কাজ করেন বা আপনারা যদি ক্লাইটোরিস কি ডকুমেন্ট প্রয়োজন হয় এবং আপনার জিনিস গুলা আছে যে ছবিগুলো আছে সেগুলো ম্যানুয়ালি অপটিমাইজ করে ফেলতে পারবেন ।এই ওয়েবসাইটে আপলোড করতে পারবেন এবং ম্যাচ করতে পারবেন.

ইমেজ কম্প্রেশন টুল

আর এখানে একটু বেশি সাইজের ছবি , 20mb মানে ইমেজ আপনি একসাথে অর্ডিন্যান্স করে ফেলতে পারবেন এবং m105r বিমান সর্বোচ্চ কত সাইজের ইমেজ করে ফেলতে পারবেন । আপনি আরেকটা ওয়েবসাইট ইউজ করতে পারেন । সেটা হচ্ছে কম্প্রেসার ডাটাবেস সফটওয়্যার সফটওয়্যার যার মাধ্যমে আপনার ওয়েবসাইটের image গুলো compressed করে ফেলতে পারবেন।

অনলাইন ইমেজ ইডিটর ওয়েবসাইট

চলুন আমরা দ্বিতীয় যে ওয়েবসাইটে সম্পর্কে বিস্তারিত আলোচনা করি। দ্বিতীয় যে ওয়েবসাইট সম্পর্কে আমরা আলোচনা করব সেটা হচ্ছে একটা ওয়ে ব্রিজ সফটওয়্যার। যার মাধ্যমে আপনি আপনার সকল ইমেজ এডিটিং করতে পারবেন। আপনি যদি ইমেজ ইডিটর হিসেবে কাজ করেন । তাহলে আপনার জন্য সুখবর রয়েছে, কাজের জন্য কিন্তু ইমেজ বানানোর প্রয়োজন হয় । আপনার যদি ফিচার ইমেজ তৈরি করার প্রয়োজন হয় ।ফেসবুকের বিভিন্ন পত্রিকার মাধ্যমে ফেসবুক পোস্ট ফেসবুক কভার, ইউটিউব চ্যানেল আছে । আপনিও খুব সহজে এ টুল দিয়ে ইমেজ ইডিট করতে পারবেন। তারপর সেটি ফোন এ সংরক্ষণ করতে পারবেন সম্পূর্ণ বিনামূল্যে।

ইউটিউব চ্যানেল এর জন্য ইন্ট্রো তৈরি – Canva.Com

এখানে আছে ইউটিউব ইন্ট্রো , তারপরে আপনার ফটোবুক অনেক কিছু । এগুলোর মাধ্যমে আপনি আপনার প্রয়োজন মতে image তৈরি করতে পারবেন । ক্যানভা এর মত আরেকটা ওয়েবসাইট নেই । যা কিনা স্নাপার মত ইমেজ এডিটিং করতে সক্ষম । ইন্টারনেট এ অনেক সফটওয়্যার আছে, কিন্তু এটার মত আর পাবেন না। আপনার ইমেজ এডিটিং করার পর আপনি ইমেজের যে ট্রানস্ফারড ব্যাকগ্রাউন্ড এটা সহ ডাউনলোড করতে পারবেন। আর এখানে কিন্তু এই টান্সফার ব্যাকগ্রাউন্ড ডাউনলোড করার অপশন নাই। যদি আপনি ইমেজ এডিটিং করার পর আপনার ট্রান্সপারেন্ট ব্যাকগ্রাউন্ড প্রয়োজন হয় তাহলে আপনার এখান থেকে প্রিমিয়াম ভার্সন টা কিনে নিতে হবে ।

এক ক্লিকেই যেকোনো ছবির ব্যাকগ্রাউন্ড রিমুভ করুন ছবির মান ভালো রেখে Remove Bg

 

এই ওয়েবসাইট  প্রথম মত ভীষণ ভালো আছে। আপনি ব্যবহার করতে পারেন তবে, ফ্রী ইমেজ এডিট করতে পারবেন। এখানে লিমিট নেই, কোন লিমিট ছাড়াই আপনি মাসে যত ইচ্ছা তত ইমেজ আপলোড এডিটিং করতে পারবেন ।

চলুন আমরা তৃতীয় থ্রি উইচের সম্পর্কে বিস্তারিত আলোচনা করব। সেটি হচ্ছে এই remove.bg এর মাধ্যমে আপনি আপনার ওয়েবসাইটের ইমেজগুলের ব্যাকগ্রাউন্ড খুব সহজে ইডিটিং করতে পারবেন । এটা কিন্তু একদম সম্পূর্ন ফ্রি, আপনার সবগুলো সার্ভিস ইউজ করার জন্য কোন টাকার প্রয়োজন হবেনা । ফটোশপে কিন্তু অনেক ঝামেলা হয়, সফটওয়্যার বা রকমারি সফটওয়্যার কারণে আমরা ব্যাকগ্রাউন্ড রিমুভ করতে পারি। তবে এই সফটওয়ারের মাধ্যমে আপনি খুব সহজে আপনার ইমেজ ব্যাকগ্রাউন্ড রিমুভ করে ফেলতে পারবেন ।

এক ক্লিকেই যেকোনো ছবির ব্যাকগ্রাউন্ড রিমুভ করুন

 

আপনার কোন রকম ঝামেলা পোহাতে হবে না ।আমরা যদি একটু নিচে যাই তাহলে আমরা এই যে উদাহরণ দেখতে পাচ্ছি অরিজিনাল রিমুভ ব্যাকগ্রাউন্ড ।আমরা খুব সহজেই রিমুভ করে ফেলতে পারবো । আবার ব্যাকগ্রাউন্ড আমরা ইডিট করতে পারি । আপনি এখানে আপনার পিকচারটি আপলোড করুন।তাহলেই এটার ব্যাকগ্রাউন্ড রিমুব হয়ে যাবে।

 

যদি এখান থেকে আমরা যেকোনো একটা কালার চুজ করি।তাহলে কিন্তু ব্যাকগ্রাউন্ড কালার চেঞ্জ হয়ে যাবে ।তো আমরা এখান থেকে ম্যানেজ করার পর আমরা যদি ব্যাকগ্রাউন্ড এর কিছু মুছতে চাই। আমরা একটু মুছে দিতে চাই , তাহলে যেভাবে আমরা মুছে দিতে পারব । এখানে আপনি খুব সহজেই যে কোন একটা ইমেজ আপলোড করলে এক ক্লিকে আপনার ব্যাকগ্রাউন্ড রিমুভ হয়ে যাবে ।

 

এডোবি ফটোশপ এক্সপ্রেস এটা ফটোশপের অনলাইন ভার্সন। পার্থক্য হচ্ছে remove.bg এর মাধ্যমে আপনি যদি কোন ইমেজ ব্যাকগ্রাউন্ড রিমুভ করেন ।তাহলে কিন্তু আপনার মূল ইমেজ অরিজিনাল রেজুলেশন আছে সেটা কিন্তু কমে যাবে। কিন্তু এডোবি ফটোশপে এক্সপ্রেস এটার ইমেজ এডিটিং প্যানেল থেকে আপনি যদি ব্যাকগ্রাউন্ড রিমুভ করেন ইমেজ ব্যাকগ্রাউন্ড রিমুভ করতে চান তাহলে রেজুলেশন কমবে না ।আপনার  যে রেজুলেশন আছে সেটাই থাকবে এবং আপনি যদি চান আরও বাড়াতে পারবেন। 

Adobe.com – ইমেজ ইডিটর , ভিডিও ইডিটর

Adobe.com ব্যবহার এর মাধ্যমে আপনি খুব সহজেই ইমেজ এডিটিং করতে পারবেন ।সেটা হচ্ছে screen.com যেটা কিন্তু গ্রীনস্ক্রীনে মাধ্যমে আমরা গ্রীন পর্দা রেখে তারপর ভিডিও করি । কিন্তু এই ওয়েবসাইটের মাধ্যমে আপনি যেকোন জায়গায় যদি ভিডিও করেন এবং সেই ভিডিওটা যদি এখানে ইমপোর্ট করে দেন আপলোড খুব সহজেই ভিডিওর ব্যাকগ্রাউন্ড রিমুভ হয়ে যাবে। আপনি এক ক্লিকেই আপনার ভিডিও ব্যাকগ্রাউন্ড রিমুভ করে ফেলতে পারবেন ।

Adobe.com ফটো এবং ভিডিও এডিটিং ওয়েবসাইট

ভিডিও ব্যাকগ্রাউন্ড রিমুভ করা হলে এরকম দেখা যাচ্ছে। এখানে কিন্তু গ্রীন স্ক্রীন ব্যবহার করা হয়নি এবং আমাদের পাঁচ নাম্বার সম্পর্কে বলা হয়েছে। এর  সম্পর্কে বিস্তারিত আলোচনা করার মূল উদ্দেশ্য হলো , ওয়েব ডিজাইন সেক্টরে কাজ করে তাদের জন্য বেস্ট হবে । যদি এখান থেকে যেকোন একটা কালার  আমরা পছন্দ করি তাহলে এখানে ক্লিক করলেই হয়ে যাবে।

Leave a Comment